কিশোরগঞ্জে মাদ্রাসাছাত্র রাকিবকে কুপিয়ে হত্যা

কিশোরগঞ্জ জেলা শহরের খরমপট্টী এলাকায় রাকিব (২৪) নামের এক ছাত্রকে কুপিয়ে হত্যা করেছে সন্ত্রাসীরা। সোমবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে জেলা শহরের খরমপট্টী এলাকায় রাকিবকে কয়েকজন সন্ত্রাসী এলোপাতাড়ি কুপিয়ে গুরুতর আহত করে। পরে হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। নিহত রাকীব নরসিংদী জেলার জামিয়া কাশেমীয়া মাদ্রাসার ফাজিল ক্লাসের ছাত্র।

নিহত রাকিবের বন্ধু ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, গত কয়েকমাস ধরে উকিলপাড়া এলাকার রাতুল, কালাম, বাবু ও সুজনদের সঙ্গে খরমপট্টী এলাকার অজয়, রাকিব ও তার বন্ধুদের মধ্যে এলাকার সিনিয়র জুনিয়র ব্যাচ বিরোধ চলে আসছিলো।

সোমবার বিকেলে রাকিব উকিলপাড়া দিয়ে খরমপট্টী এলাকায় তার নিজ বাসায় আসার পথে রাতুল, কালামের সঙ্গে সিনিয়র জুনিয়র নিয়ে কথাকাটাকাটি হয়। সন্ধ্যার পর বিষয়টি নিয়ে রাকিব ও তার কয়েকজন বন্ধু একত্রিত হয়ে উকিলপাড়া যায় সিনিয়র কয়েকজনের কাছে বিষয়টি জানাতে। কয়েকজনকে জানিয়ে রাকিব চলে যায় স্থানীয় শহীদী মসজিদে ঈশার নামাজ পড়তে। নামাজ শেষে বাসায় ফেরার পথে রাত সাড়ে ৮টার দিকে রাতুল, কালাম ও সুজনসহ বেশ কয়েকজন রাকিবকে একা পেয়ে ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে। এ সময় তার ডাক-চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে তাকে উদ্ধার করে। তবে কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতালে নেওয়ার পথেই তার মৃত্যু হয়।

হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. তানভীর আহমেদ জানান, রাকীবের বুকের বাম পাশের উপরের অংশে ধারালো অস্ত্রের গভীর জখমের চিহ্ন ছিল এবং অতিরিক্ত রক্তক্ষরণের ফলে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়েছে।

নিহত নববিবাহিত রাকীব ময়মনসিংহ জেলার নান্দাইল উপজেলার বাকচান্দা ফাজিল মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল আবুল মনসুরের পুত্র। দুই ভাই, দুই বোনের মধ্যে রাকীব ছিল দ্বিতীয়।

কিশোরগঞ্জ মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মীর মোশারফ হোসেন জানান, এ ঘটনায় এখনো কোন মামলা হয়নি, তবে জড়িতদের গ্রেফতারে অভিযান চলছে।

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

আপনাকে কমেন্টস করতে হলে অবশ্যই লগইন করতে হবে লগইন

বিষয় ভিত্তিক পোষ্টগুলো

কারিগরি সহায়তায়:

বিজ্ঞাপন

প্রবেশ - কপিরাইটঃ ২০০৭ থেকে ২০১৪ | কিশোরগঞ্জ ডট কম