ই-বুক: মুক্তিযুদ্ধ ’৭১ : দালাল আইনে সাজাপ্রাপ্ত যুদ্ধাপরাধী

আজ ১৪ ডিসেম্বর, শহীদ বুদ্ধিজীবি দিবস। চল্লিশ বছর আগে জামাতে ইসলামীর ছাত্র সংগঠন ইসলামী ছাত্রসংঘের (এখন ইসলামী ছাত্রশিবির)সদস্যদের নিয়ে তৈরি কুখ্যাত ঘাতক দল আল-বদরদের নৃশংস হত্যাকাণ্ডের শিকার হয়েছিলেন বাংলার সেরা মেধাবীরা। শোকের এই দিনটি উপলক্ষ্যে আমার ব্লগ রিসার্চ ফাউন্ডেশনের তরফ থেকে আমার ব্লগের ব্লগার ও পাঠকদের জন্য উপহার হিসেবে আপলোড করা হলো যুদ্ধাপরাধীদের বিচার সংক্রান্ত একটি সংকলন মুক্তিযুদ্ধ ’৭১: দালাল আইনে সাজাপ্রাপ্ত যুদ্ধাপরাধী। এ এস এম সামছুল আরেফিন সম্পাদিত ও সংকলিত এই ই-বুক সংস্করণটি সাম্প্রতিক প্রেক্ষাপটে নিঃসন্দেহে সংগ্রহে রাখার মতো একটি উপাত্ত। দলিলও বলতে পারেন।

বইয়ের ভূমিকায় লেখা হয়েছে:

এই গ্রন্থটি মূলত একটি সংকলন। ১৯৭১ এর মু্ক্তিযুদ্ধের সময়কালে পাকিস্তান সামরিক বাহিনীর নৃশংস হত্যাকান্ডের সহযোগী হয়ে যে সমস্ত ব্যক্তি বিচারের সম্মুখীন হয়েছিলেন সেই ব্যক্তিবর্গের মধ্য হতে কয়েকজনের মামলার রায় এই গ্রন্থে উপস্থাপন করা হয়েছে। এই সমস্ত মামলার সকল বিবরণ সরকারের দপ্তরেই মজুদ আছে।সেই বিষয়টিকে চিহ্নিত করার লক্ষ্যেই আমাদের আজকের এই প্রচেষ্টা। আমরা মনে করি বর্তমানেও এই সমস্ত মামলার সূত্র ধরে এদেশের হাজার হাজার যুদ্ধাপরাধীর সেই সময়কার সকল কর্মকাণ্ডের তথ্য সংগ্রহ করা সম্ভব। এবং সংগৃহীত এই সমস্ত তথ্য জানিয়ে দিতে পারে একাত্তরের নৃশংসতার ইতিহাস।

দালাল আইনে সাজাপ্রাপ্ত যুদ্ধাপরাধী

স্বাধীনতার পর দালাল আইনে পাকিস্তান সেনাবাহিনীর দোসর এদেশী দালালদের যে বিচার শুরু হয়েছিলো তা সেসময়কার বিভিন্ন পত্রিকায় প্রকাশিত হয়েছে। প্রকাশিত সেসব খবরের অনেকগুলোই এখানে একাট্টা করা হয়েছে। বাড়তি আছে সম্পূরক কিছু গুরুত্বপূর্ণ সংবাদও। আশা করি ব্লগাররা বইটি পেয়ে খুশী হবেন।

পড়তে এবং ডাউনলোড করতে:  স্ক্রিবড | মিরর ডাউনলোড লিংক: মিডিয়া ফায়ার
স্ক্যান কৃতজ্ঞতা : রাজু ভাই , পোষ্টটি আমার ব্লগ থেকে নেয়া সংগ্রহিত

আপনাকে কমেন্টস করতে হলে অবশ্যই লগইন করতে হবে লগইন

বিষয় ভিত্তিক পোষ্টগুলো

কারিগরি সহায়তায়:

বিজ্ঞাপন

প্রবেশ - কপিরাইটঃ ২০০৭ থেকে ২০১৪ | কিশোরগঞ্জ ডট কম